http://shamsfood.com/

সিল করে দেয়া হয়েছে সীমান্ত আর কোনো মিয়ানমার নাগরিককে ঢুকতে দেবেনা বাংলাদেশ

বাংলাদেশ-মিয়ানমার সীমান্ত বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে বলে জানিয়েছেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. এ কে আব্দুল মোমেন। তিনি বলেন, নতুন করে আর কোনো মিয়ানমার নাগরিককে ঢুকতে দেবেনা বাংলাদেশ।

বুধবার দুপুরে পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে একথা বলেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী এ কে আব্দুল মোমেন। এর আগে, সফররত জাতিসংঘ শরণার্থী বিষয়ক সংস্থার (ইউএনএইচসিআর) বিশেষ দূত ও হলিউড অভিনেত্রী অ্যাঞ্জেলিনা ও জাতিসংঘ মহাসচিবের বিশেষ দূত ক্রিস্টিনা বার্নারের সাথে রোহিঙ্গা ইস্যুতে আলোচনা করেন তিনি।

সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে রোহিঙ্গা ক্যাম্প থেকে নিখোঁজ ২ লাখ রোহিঙ্গারা কোথায় গেছে সে সম্পর্কে বিস্তারিত কোনো তথ্য তার কাছে নেই বলেও এসময় তিনি জানান।

পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, ‘মিয়ানমারের সঙ্গে আমরা (বাংলাদেশ) বর্ডার সিল করে দিয়েছি। এখন আর কাউকে (রোহিঙ্গা বা অন্য মিয়ানমার নাগরিক) ঢুকতে দেয়া হবে না।’

দেশটির রোহিঙ্গা নাগরিকদের পর এবার সাধারণ বৌদ্ধ ও উপজাতিদের তাড়িয়ে দিচ্ছে মিয়ানমার। ইতোমধ্যে এদের অল্পসংখ্যক বাংলাদেশে প্রবেশ করেছে। কয়েকজনকে সীমান্ত থেকে ফেরতও পাঠিয়েছে বাংলাদেশের সীমান্তরক্ষীরা।

এ বিষয়ে এ কে আব্দুল মোমেন বলেন, ‘আমরা বর্ডার অনেক খুলে রেখেছি। এখন আর খোলা হবে না। এখন অন্যরা খুলে রাখুক।’

পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, ‘মূলত রাখাইন আর্মি (বিদ্রোহী গোষ্ঠি) ও মিয়ানমার আর্মির মধ্যে সংঘর্ষের কারণে রোহিঙ্গাদের পর এবার বৌদ্ধ ও অন্যান্য এথনিক গ্রুপ দেশ ছাড়ছেন। তারা তাদের দেশ ছাড়ছে। এ অবস্থায় মিয়ানমার থেকে এখন বৌদ্ধ ধর্মের মানুষও আসতে শুরু করেছে, এ কারণে আমরা বর্ডার সিল করে দিয়েছি।’

এর আগে গত ২৯ জানুয়ারি মঙ্গলবার ঢাকায় নিযুক্ত মিয়ানমারের রাষ্ট্রদূত উ লুইন ও কে জরুরি তলব করে প্রতিবাদ জানিয়েছে পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়। পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের দক্ষিণ-পূর্ব এশিয়া অনু বিভাগের মহাপরিচালক মো. দেলোয়ার হোসেন মিয়ানমারের রাষ্ট্রদূতের সঙ্গে বৈঠক করেন।

http://shamsfood.com/